প্রেমের কবিতা | অসম্ভব সুন্দর প্রেমের কবিতা

Click View More

প্রেমের কবিতা Premer Kobita Bengali Love Poem

https://bloggpower.com/


একদিন দুজনে হাঁটব আবার উড়বে তোমার চুল, একদিন শূন্য বাতাস ছুয়ে যাবে কৃষ্ণচুড়ার ফুল………।।
হাতে হাত ,কানের কাছে মুখটি এনে বলে , এসো না কাছে ,দুজন ভিজি আজ বৃষ্টির জলে !
তুমি যেমনবলতে পারবে না,আঁকাশে কতগুলো তাঁরা আছে..?সাগরে কতফোঁটা পানি আছে..?ঠিক তেমনি আমিওবলতে পারবো না,তোমার জন্য আমার হৃদয়ে, কতটুকুভালবাসা আছে……??!
আমাদের দেশে হবে সেই মেয়ে কবে,মিসকল না দিয়ে, ডাইরেক্ট কল দিবে।পাঁচ জনকে মন না দিয়ে একজনকে দিবে,,সারা জীবন একজনকে ভালবেসে যাবে।
মন যদি আকাশ হতো তুমি হতে চাঁদ ভালবেসে যেতাম শুধু হাতে রেখে হাত। সুখ যদি হৃদয় হত তুমি হতে হাসি হৃদয়ের দুয়ার খুলে বলতাম তোমায় ভালবাসি।

প্রেমের কবিতা

বন্ধু তোমায় আকাশ দেব দেব ফুলেরমালা, তুমি শুধুমনে রেখো আমায়সারা বেলা। চোখেরকান্না মুছে দেবদেব তোমায় হাসি, তাইতো আমি বন্ধুতোমায় এতো ভালবাসি।
নীল রংগের পূরি তুমি..সাদা মেঘের হাসিঁকালু মেঘেরছায়া তুমি……অনেক ভাল বাসিকাশ ফুলেরসাদা রংআমি গায়ে মাখি,ভোমার হাটারপথে আমি,ছায়া হয়ে থাকি,তাই ত আমিতোমার,এতভালবাসি।।।।।
করি নি, Love করবো না পাপ, খাইনি ছেকা, ভালো আছি একা আমি বলবো জান, সে করবে ফান, সাবধান, Love এরমদ্ধে আছে, ইবলিশ সয়তান —
পাখি কে নয় ,তার সুর কে ভালোবাসো ..ফুল কে নয় ,তার সুবাস কে ভালোবাসো ..গান কে নয় ,তার কথা কে ভালোবাসো ..মানুষের সুন্দরয কে নয় ,তার মন কে ভালোবাসো…!!!

প্রেমের কবিতা

দিন যায় দিন আসে, সময়েরস্রোতে ভাসে.কেউ কাঁদে কেউ হাঁসে,তাতে কি যায় আসে.খুঁজে দেখো আশে পাশে, কেউতোমায় তারজীবনেরচেয়ে বেশি ভালবাসে…….
তুমি আমার রঙিন স্বপ্ন, শিল্পীররঙ্গে ছবি. তুমি আমার চাঁদের আলো,সকালবেলার রবি.. তুমি আমর নদীরমাঝে একটি মাত্র কূল, তুমি আমারভালবাসার শিউলি বকুল ফুল…….
ফুলে ফুলে সাজিয়ে রেখেছি এই মন, তুমি আসলে দুজনে সাজাবো জীবন, চোখ ভরা স্বপ্ন বুক ভরা আশা, তুমি বন্ধু আসলে দেবো আমার সব ভালবাসা…
যে জন সৃষ্টি করেছে তোমায়,আমিও সৃষ্টি তার।তবু কেনো তোমার সাথে ব্যবধান আমার। আমারো তো মন আছে,আছে ভালবাসা। আমারো তো থাকতে পারে,তোমায় পাবার আশা।
স্বপ্ন মানুষকে জাগায়,স্মৃতি মানুষকে কাঁদায়!!!ভূল মানুষকে শেখায়!!! প্রেম মানুষকে ভাষায়…….কিন্তুবন্ধুত্ব মানুষকে পাল্টয়……..

প্রেমের কবিতা

❃ রাত নয় চাদ আমি ❃সেই চাদের আলো তুমি ❃মাটি নয় ফুল আমি ❃সেই ফুলের কলি তুমি ❃আকাশ নয় মেঘ আমি ❃সেই মেঘের বৃষ্টি তুমি ❃এভােবই মিশে থাকব♥ তুমি আর আমি♥
খাতায় লিখে রেখেছি প্রেমের কবিতা। মনে গেথে রেখেছি তোমার ছবিটা
তোমার সাথে প্রতিটি দেখাই এক একটা প্রেমের কবিতা। অসমাপ্ত!!
তোমার মনে লিখেছি আমি আমার প্রেমের কবিতা
শুধু তোর জন্যই আমার প্রতিক্ষার সহস্র বছর সেকেন্ডে রূপ নেয়!! তুই কবে আসবি??
আমার ভাবনা সমূদ্র তুমিময়!! ভাবনা-সমূদ্রের একবিন্দু বালিকনা সমও – তোমার কাছে প্রকাশ করতে পাড়ি না!! তুমি তার কিছুই বোঝনা ??

প্রেমের কবিতা

ইদানিং স্বর্গ-সুখ, কাম-বাসনা কিছুই খুজিনা! উপড়ে ইশ্বর আর মত্য তুমি ছাড়া – আমি আর কিছুই বুঝি না!!
স্বর্গ-সুখ কি বা কেমন জানি না!
তবে তোমার সাথে প্রতিটি মুহুর্তে- আমি এতটুকুই বুঝি, আমার স্বর্গ চাই না – আমি তোমাতেই খুশি।।

ভালো বাসলেই হবে

কেউ একজন অভিমান করুক
কারনে অকারনে হাসুক
অল্পতেই কাঁদুক
চোখ মুছে দিবো।
থাকুকনা
অভিযোগ অনুযোগ
ভালোবাসার প্রতিদান দিবো।
অযথাই বকবকানি,
রাস্তায় হেটে হেটে আইসক্রিম খাওয়া,
অহেতুক দাবি গুলো
সব মেনে নিবো
শুধু ভালো বাসলেই হবে।।
……………………………..

বলবো না সব করতে পারি

বলবো না সব করতে পারি।
যা সাধ্যের মধ্যে কেনইবা নয়?
ভালোবাসা যেমনই হোক
আবেগ গুলো ভুলিয়ে দিবেনা বাস্তবতা।
এমনটা পারবো না,
তোমার জন্য চাঁদ এনে দেব।
তবে অসংখ্য জোস্না রাত দিতেই পারি।
এমন মিথ্যে বলবো না,
সারাজীবন অপেক্ষা করবো।
কিছুকাল অপেক্ষা করতেই পারি।
এমন কখনোই হবেনা,
তোমাকে না পেলে শেষ হয়ে যাবো।
খারাপতো একটু লাগতেই পারে।

…………………………..

কোথায় তুমি

আমার বিশ্বাস
ভালোবাসার নির্ভেজাল আশ্রয়
ক্লান্ত পরিশ্রান্ত মনের সান্তনা।
উত্তেজনা শিহরণের বাস্তবতা
শৌর্য বীর্য আগামীর অস্তিত্ব,
ভাল মন্দের সুর, আমার প্রেম।
আমার গোলাপের গন্ধ
ছড়া ছন্দ গল্প কবিতা।
কোথায় তুমি?
……………………………..
নীরব প্রেমিকা

ওগো নীরব প্রেমিকা।
যত দেখি ততই চোখের রিপুটা
বেপরোয়া হয়।
এটা সমীচীন কিনা জানিনা।
একটা সংগীতের লাইন মনে করে শান্তনা পাই;
তুমি সুন্দর তাই চেয়ে থাকি
সেকি মোর অপরাধ।

ওগো কাল্পনিক প্রেম।

হয়ত তোমার অবচেতন আত্না বুঝতেই পারেনা,
কিংবা বুঝতে পারে।
লুকিয়ে দেখার চেষ্টা করি কতবার।
তোমার সাথে কথা বলা,
মিষ্টি চোখের দিকে তাকিয়ে
অপ্রকাশিত কিছু সুখ পাই।
ভাবতে পারো আমি প্রেমে পরে গেছি।
না না এমনটা ভেবনা,
আমিতো প্রেমে আগেই পরেছি।
আমাদের প্রেম সূর্য লুকানো মেঘলা আকাশের মতো।
নীরব প্রেমিক প্রেমিকারা কখনোই
প্রেমের সফলতা চায়না।
এ প্রেম কাল্পনিক সুখ নেয়া
প্রেম আজীবনের।
প্রেম তোমার পৃথিবীকে
কখনোই বাধাগ্রস্ত করবেনা।
…………………………………..

কল্পনা প্রেমিক

বন্ধু, আমায় জানো কি?
আমি কল্পনা প্রেমিক।
কল্পনার গহীনে হারিয়ে যাই অনায়াসে,
কেউ কেউ কল্পনার রাজ্যে রাণীও হয়।
অনেক ভালো লাগার ছবি আকলেই
বলা হয়না।
আসলে আমি বলতেই চাইনা।
কল্পনা গুলো এদিক সেদিক ছোটা ছুটি করে নির্দ্বিধায়।
মাঝে মাঝে ভয় হয়
কখনোই নিজেকে স্থির করতে পারিনা।
কেউ আমায় ভালোবাসার চাদরে ধরে রাখতে পারেনি।
কল্পনা প্রেমিকরা নাকি এমনি হয়।
নিতান্ত সরলতা না থাকলেও
কারো ক্ষতি করতে পারিনা।
ভালো বাসতেও জানি।
আমি বিশ্বাস করি,
বন্ধুত্বহীন ভালোবাসা যেমন হয়না
ভালোবাসাহীন বন্ধুত্বও হয়না।
যারা আমায় বুঝতে পারে সবাই আমার বন্ধু।
কিছু কল্পনা বাস্তবে মিলে যাওয়াই বন্ধুত্ব।
ভালো লাগার গল্প স্মৃতি পটে ধরে রাখাই ভালোবাসা।
কাল্পনিক প্রেমে সাড়া দেয়ার যোগ্য সবাই আমার প্রেমিকা।।

চ্যাট লিস্টে প্রথমে থাকা বন্ধুটি।
………………………………………….
তোমায় নিয়ে ভাবনা

গরমে ওষ্ঠাগত প্রাণ।
খোলা জানালায় মৃদু বাতাসের অপেক্ষায়,
কোথাও বাতাসের ছিটেফোঁটাও নাই।
গাড়ি হর্ণের শব্দ বড্ড জ্বালাচ্ছেতো
ইচ্ছে করে ড্রাইভারকে একটা থাপ্পড় মেরে আসি।
থাপ্পড় মারবো!!
উল্টো থাপ্পড় খেয়ে আসবো,
প্রয়োজনেই তো বাজাচ্ছে
তার চেয়ে বরং জানালাটা বন্ধ করে দেই।
না না…
আজকেনা চাঁদ দেখার কথা।
কোথায় চাঁদ?
আকাশটা তেমন সুন্দরও না।
পারলাম না।
মিথ্যে অনুভূতিতে তোমায় খুঁজে নিতে।
জানালাটা বন্ধই করলাম।
নিরবে তোমায় নিয়ে কবিতা লেখাই শ্রেয়।

বসন্তের শেষ দিক।
কেন যেন খুব ইচ্ছে হয়,
খুবই ইচ্ছে হয়
হালকা অন্ধকারে দূর থেকে তোমার ছায়া আবিষ্কার করতে।
একটু শুকনো চুলের গন্ধ নিতে।
চুলগুলো উড়বে বাতাসে।
ঝিঁঝিঁ পোকায় ভয় না পেয়ে তোমার হাতটি ধরতে চুপিসারে।

……………………………………

স্বপ্নচারিণী

ওগো স্বপ্নচারিণী,
তুমি কি ভাবছো
সব সময় আকাশে চাঁদ দেখতে পাবে?
মাঝে মাঝে চাঁদ উঠবেনা
কখনো মেঘের আড়ালে থাকবে।
চাঁদ নিয়ে কল্পনাকে আর ভারী করোনা।
যার নিজের শক্তি নেই
যে মেঘের ধোয়াশায় ডাকা পরে,
যে অনেকটা ভবঘুরের মতো ;
সে সব সময় ঝলমলে আলো দিতে পারবেনা।
তাকে নিয়ে স্বপ্ন বুনোনা।
যদি চাও ভালোবেসে যাও।
বন্ধুত্ব এর চেয়ে কিবা আছে বড়
প্রতারণা নেই যেখানে।।
………………………….

মোহ

আড় চোখের চাহনী আমায় ভাবিয়ে তোলে।
বিশ্বাসটা হয়ত কমে গেছে
স্মৃতিগুলোতো অার মুছে যায়নি।
প্রেমের গল্প করতে করতে হয়ত প্রেমেই পরে গেছিলাম।
যদিও এ প্রেম ছিলো অসম।।
অনেক দিন পর
আজ গল্প হলেও,
সাদা লুঙী সবুজ তোয়ালে,
আর তোমার রাগী মনোভাব
আজ নেই।
গল্পটাও জমেনা।
তুমি আমাকে ভয় পেতে,
ভয়টাও আজ হয়ত কেটেছে,
আগের মত ভাবতে চাও? তাইনা।
কিন্তু আমি
মোহ যে আমার আজও কাটেনি।
ভুলটা আমারি ছিলো।
তুমি যা ভাবতে আমি তার উল্টোই ভাবতাম।।
তোমার ছিলো মনের টান
আর আমার ছিলো মিথ্যে মোহ।
আমার ছিলো উষ্মতা
তোমার সরলতা।
সত্যি তুমি বুড়ি হও।
আগের মত হয়ে যাবো।।।।
…………………………….

আজি ভোর বেলায়

আজি ভোর বেলায় একটা কবিতা শুনাওনা।
কবিতার ছন্দে ছন্দে হারিয়ে যেতে চাই তোমাতে।
আমি হবোনা ঝিঁঝিঁ পোকা।
হবো ভোরের পাখি মাতাল হাওয়া,
তোমার কবিতার ছন্দ।
অপলক নয়নে তোমার মুখ বদনে
চেয়ে থাকবো।
এলোকেশ উড়বে,
দুষ্ট চোখে তাকাবে।
থাকবে শিহরণ,
ভালবাসা আজীবন।।
……………………………

মনে পরে

সূর্য উদয় দেখার ইচ্ছে হয় খুব,
ডোবাও দেখিনা অনেক দিন।
কতদিন চাঁদনী রাতে চাঁদের সাথে হাঁটিনা,
জোনাকি কবে ধরেছি মনেই নেই।
ইচ্ছে হয় জোয়ারের অনুকূলে
ভরা নদীতে ভাসি।
বড়শিগাঁথা মাছের উম্মাদ টানাটানি দেখি,
ভর দুপুরে ভেলায় শালুক তুলি
মালা বানাতে নয়
খেলাঘর সাজাতে।
বিকেলে ইচ্ছে হয় নানা বাড়ির পথ ধরি,
খেয়া পারাপারে নব বধুর বাপের বাড়ি যাওয়ার
হাসিমাখা মুখে তৃপ্তির ভাষা খুঁজি।
(৩০-০১-১৭)
…………………………………………

ইচ্ছে হয়

আমার ইচ্ছে হয়।
ইচ্ছে হয় দুপুরে না খেয়ে ঘুমিয়ে থাকতে
তিন বেলার মিল একসাথে সন্ধ্যায় খেতে
বিশ টাকার ভাড়া দিয়ে আট টাকার চা খেতে।
সারা রাত জাগতে
আবার সন্ধ্যায় ঘুমোতে।
খোলা রাস্তায় দৌড়াতে
গুড়ি গুড়ি বৃষ্টিতে ভিজতে।
ইচ্ছে হয় আলার্ম দিয়ে মধ্য রাতে ঘুম থেকে উঠে জানালার পাশে বসে থাকতে।
ব্যাস্ততা ছাড়া মোবাইল সাইলেন্ট করে রাখতে
যারে তারে কল দিয়ে ডিস্টার্ব করতে
আবার অসংখ্য রিং বাজার পরও কল না ধরতে।
ইচ্ছে হয় খরচের টাকা থেকেও ধার দিতে
আবার জমানো টাকা গুজিয়ে রাখতে।
অটো ভাড়া ভিক্ষুককে দিয়ে হেটে বাসায় ফিরতে
আবার টাকা থাকতেও বিরক্তির ভাব নিতে।
ইচ্ছে হয় অল্পতে রাগ করতে
আবার কঠিন কথাও এড়িয়ে যেতে।
যখন তখন চ্যাট করতে
কখনো সিন করে রিপ্লাই না দিতে।
ইচ্ছে হয় পরীক্ষার আগের রাতে কবিতা লিখতে
ছবি আঁকতে।
ইচ্ছে হয় ভাবতে
ভাবতে ভাবতে
ভাবনার জগতে হাড়িয়ে যেতে।
আমার ইচ্ছে হয়
ইচ্ছে হতেই পারে।।
…………………….

চিঠি দিও

প্রিয়তমা একটা চিঠি দিও
বাংলা অক্ষরে লিখে দিও।
বাংলিশ লিখনা যেন,
ইংলিশ ভুলেও না।
এতে মধুরতা নেই
নেই আবেদন।
লাভ ইউ বলিও না
এতে বাস্তবতা নেই,
আছে যান্ত্রিকতা।
ভালো লাগে, ভালোবাসি বলিও।
প্রিয়তমা….
সত্যিই একটা চিঠি দিও।।


তুমি ফুল আমি কলি*** নাম্বার দাও কথা বলি*** তুমি চাঁদ আমি আলো*** তোমাকে আমার লাগে ভালো*** তুমি মেঘ আমি বৃষ্টি*** তোমার জন্য আমার সৃষ্টি*** আমি গোলাপ তুমি জবা***
তুমি কি আমার হবা*** যদি হতে চাও তাহলে দুটি হাত বাড়াও,,,,
কনফিউজড প্রেম তোমার সাথে হয়না দেখা হয়না কথা রোজ, ভাবলে তোমায় কঠিন হৃদয় যাচ্ছে হয়ে ন্যূব্জ। মোচড়ে উঠে হৃদয় আমার দেখলে তোমায় কভূ, মনের ভাষা হয়না প্রকাশ গোপনে রয় তবু।

তোমাকে ছাড়া আমি এতোটাই নির্জন শূন্য – যেন প্রাণের অস্তিত্বহীন চাঁদ, তোমার আমার মাঝে দাঁড়ানো চীনের মহাপ্রাচীর ছাড়া আর কিছুই দেখে না ।।

বেপরোয়া প্রেম একটু দূরে সরলেই তুমি মেজাজটা যায় চড়ে, ইচ্ছে করে এই পৃথিবী ভষ্ম করি পুড়ে। আমার কাছে তুচ্ছ সবই কেবল তুমি ছাড়া, তোমার জন্য পৃথিবী ও পারি ছাড়তে।
বাঁশ খাওয়া প্রেম স্কুল লাইফে তোমায় দেখি কলেজ লাইফে প্রেম, হাতের মাঝে উল্কি এঁকে লিখেছি তোমার নেম। সাত বছরের প্রেমের পর করবো যখন বিয়ে, আমায় ছেড়ে বাঁধলে ঘর অন্য মানুষ নিয়ে।
জীবনকে খুজতে গিয়ে তোমাকে পেয়েছি,নিজেকে ভালবাসতে গিয়ে তোমার প্রেমে পরেছি,,জানতাম না কাকে বলে ভালো ভালবাসা,সিখিয়েছ তুমি।…
হঠাৎ এসেছিলে চোখের আলোতে,হারিয়ে ফেলেছি এক ঝলকে, তবুওতুমি ছিলে চোখের কোণে,আগলে রেখেছি বড় যতনে,ভালোবেসেছি তোমাকে প্রথম,চোখের আলোতে এসেছ যখন;ছিলে হৃদয় জুড়ে প্রতিক্ষণে ভালবাসা তো হয়না মনের বিপরীতে।।।
কেউ যদি অভিমানে তোমার সাথে কথা না বলে,, বুঝে নিবে সে তোমায় আড়ালে মিস করে.. আর কেউ যদি না দেখে কাঁদে,, বুঝে নিবে সে তোমায় ভীষণ ভালবাসে..!!
ভুলতে পারিনা তারে,, ভালবাসি আমি যারে.. মনে পড়ে তারে,, শুধু বারেবারে.. জানিনা সে কত দূরে,, তবুও আছে মন জুরে.. এখনো যে ভাবি তারে,, সে কি আজো ভালবাসে আমারে..??
একটা আঁকাশে অনেক তাঁরা । একটা জীবনে দূঃখ ভরা । অনেক রকম প্রেমের ভুল । ভুলের জন্য জীবন দিবো । তবুও আমি তোমারই রবো ।
রাজার আছে অনেক ধন । আমারআছে একটি মন । পাখির আছে ছোট্ট বাসা । আমার মনে একটি আশা । তোমায় ভালোবাসা ।
পৃথিবীটা তোমারি থাক, পারলে একটু নীল দিও। আকাশটা তোমারি থাক, পারলে একটু তারা দিও।মেঘটা তোমারি থাক, শুধু একটু ভিজতে দিও। মনটা তোমারি থাক, পারলে একটু জায়গা দিও
তুমি যদি বাসো ভালো,,চাঁদের মতো দেব আলো,,যদি আমায় ভাবো আপন,,হব তোমার মনের মতন,,নদী যেমন দেয় মোহনা,,তোমার ই আমি তোমার উপমা ।

প্রেমের কবিতা

স্বপ্ন দিয়ে আঁকি আমি, সুখের সীমানা । হৃদয় দিয়ে খুজি আমি, মনের ঠিকানা । ছায়ার মত থাকবো আমি, শুধু তার পাশে, যদি বলে সে আমায় সত্যি ভালবাসে॥
সুন্দর রাত তার চেয়ে সুন্দর তুমি, মনের দরজা খুলে দেখ তোমার অপেক্ষায় দাড়িয়ে আছি আমি। দু’হাত বাড়ালাম আমি তোমার তরে, তুমি কী নিবে আমায় ভালবেসে আপন করে ?
ফুল লাল পাতা সবুজ,মন কেন এতো অবুজ । কথা কম কাজ বেশি, মন চায় তোমার কাছে আসি । মেঘ চায় বৃষ্টি, চাঁদ চায় নিশি, মন বলে আমি তোমায় অনেক ভালোবাসি ।
যদি বৃষ্টি হতাম…… তোমার দৃষ্টি ছুঁয়ে দিতাম। চোখে জমা বিষাদ টুকু এক নিমিষে ধুয়ে দিতাম। মেঘলা বরণ অঙ্গ জুড়ে তুমি আমায় জড়িয়ে নিতে,কষ্ট আর পারতো না তোমায় অকারণে কষ্ট দিতে..!
আমার জীবনে কেউ নেই তুমি ছাড়া, আমার জীবনে কোনো স্বপ্ন নেই তুমি ছাড়া , আমার দুচোখ কিছু খোজেনা তোমায় ছাড়া, আমি কিছু ভাবতে পারিনা তোমায় ছাড়া ,
আমি কিছু লিখতে পারিনা তোমার নাম ছাড়া, আমি কিছু বুঝতে চাইনা তোমায় ছাড়া !

Premer Kobita Bengali Love Poem প্রেমের কবিতা

একদিন দুজনে হাঁটব আবার উড়বে তোমার চুল, একদিন শূন্য বাতাস ছুয়ে যাবে কৃষ্ণচুড়ার ফুল………।।
হাতে হাত ,কানের কাছে মুখটি এনে বলে , এসো না কাছে ,দুজন ভিজি আজ বৃষ্টির জলে !
তুমি যেমনবলতে পারবে না,আঁকাশে কতগুলো তাঁরা আছে..?সাগরে কতফোঁটা পানি আছে..?ঠিক তেমনি আমিওবলতে পারবো না,তোমার জন্য আমার হৃদয়ে, কতটুকুভালবাসা আছে……??!
আমাদের দেশে হবে সেই মেয়ে কবে,মিসকল না দিয়ে, ডাইরেক্ট কল দিবে।পাঁচ জনকে মন না দিয়ে একজনকে দিবে,,সারা জীবন একজনকে ভালবেসে যাবে।
মন যদি আকাশ হতো তুমি হতে চাঁদ ভালবেসে যেতাম শুধু হাতে রেখে হাত। সুখ যদি হৃদয় হত তুমি হতে হাসি হৃদয়ের দুয়ার খুলে বলতাম তোমায় ভালবাসি।
বন্ধু তোমায় আকাশ দেব দেব ফুলেরমালা, তুমি শুধুমনে রেখো আমায়সারা বেলা। চোখেরকান্না মুছে দেবদেব তোমায় হাসি, তাইতো আমি বন্ধুতোমায় এতো ভালবাসি।

নীল রংগের পূরি তুমি..সাদা মেঘের হাসিঁকালু মেঘেরছায়া তুমি……অনেক ভাল বাসিকাশ ফুলেরসাদা রংআমি গায়ে মাখি,ভোমার হাটারপথে আমি,ছায়া হয়ে থাকি,তাই ত আমিতোমার,এতভালবাসি।।।।।

করি নি, Love করবো না পাপ, খাইনি ছেকা, ভালো আছি একা আমি বলবো জান, সে করবে ফান, সাবধান, Love এরমদ্ধে আছে, ইবলিশ সয়তান —
পাখি কে নয় ,তার সুর কে ভালোবাসো ..ফুল কে নয় ,তার সুবাস কে ভালোবাসো ..গান কে নয় ,তার কথা কে ভালোবাসো ..মানুষের সুন্দরয কে নয় ,তার মন কে ভালোবাসো…!!!
দিন যায় দিন আসে, সময়েরস্রোতে ভাসে.কেউ কাঁদে কেউ হাঁসে,তাতে কি যায় আসে.খুঁজে দেখো আশে পাশে, কেউতোমায় তারজীবনেরচেয়ে বেশি ভালবাসে…….
তুমি আমার রঙিন স্বপ্ন, শিল্পীররঙ্গে ছবি. তুমি আমার চাঁদের আলো,সকালবেলার রবি.. তুমি আমর নদীরমাঝে একটি মাত্র কূল, তুমি আমারভালবাসার শিউলি বকুল ফুল…….

ফুলে ফুলে সাজিয়ে রেখেছি এই মন, তুমি আসলে দুজনে সাজাবো জীবন, চোখ ভরা স্বপ্ন বুক ভরা আশা, তুমি বন্ধু আসলে দেবো আমার সব ভালবাসা…

যে জন সৃষ্টি করেছে তোমায়,আমিও সৃষ্টি তার।তবু কেনো তোমার সাথে ব্যবধান আমার। আমারো তো মন আছে,আছে ভালবাসা। আমারো তো থাকতে পারে,তোমায় পাবার আশা।
স্বপ্ন মানুষকে জাগায়,স্মৃতি মানুষকে কাঁদায়!!!ভূল মানুষকে শেখায়!!! প্রেম মানুষকে ভাষায়…….কিন্তুবন্ধুত্ব মানুষকে পাল্টয়……..

❃ রাত নয় চাদ আমি ❃সেই চাদের আলো তুমি ❃মাটি নয় ফুল আমি ❃সেই ফুলের কলি তুমি ❃আকাশ নয় মেঘ আমি

❃সেই মেঘের বৃষ্টি তুমি ❃এভােবই মিশে থাকব♥ তুমি আর আমি♥
খাতায় লিখে রেখেছি প্রেমের কবিতা। মনে গেথে রেখেছি তোমার ছবিটা
তোমার সাথে প্রতিটি দেখাই এক একটা প্রেমের কবিতা। অসমাপ্ত!!
তোমার মনে লিখেছি আমি আমার প্রেমের কবিতা
শুধু তোর জন্যই আমার প্রতিক্ষার সহস্র বছর সেকেন্ডে রূপ নেয়!! তুই কবে আসবি??
আমার ভাবনা সমূদ্র তুমিময়!! ভাবনা-সমূদ্রের একবিন্দু বালিকনা সমও – তোমার কাছে প্রকাশ করতে পাড়ি না!! তুমি তার কিছুই বোঝনা ??

প্রেমের কবিতা

ইদানিং স্বর্গ-সুখ, কাম-বাসনা কিছুই খুজিনা! উপড়ে ইশ্বর আর মত্য তুমি ছাড়া – আমি আর কিছুই বুঝি না!!
স্বর্গ-সুখ কি বা কেমন জানি না! তবে তোমার সাথে প্রতিটি মুহুর্তে- আমি এতটুকুই বুঝি, আমার স্বর্গ চাই না – আমি তোমাতেই খুশি।। প্রেমের কবিতা

Leave a Comment